নয়াদিল্লি, ২০ মে। বিস্ফোরক তথ্য ফাঁস করল WION News। পাক আইনজীবী খাবর কুরেশিকে ২০০৪ সালে মামলা লড়ার জন্য নিয়োগ করেছিল ইউপিএ সরকার। Fox Mandal নামে একটি ল ফার্ম এই আইনজীবীর নাম সুপারিশ করেছিল। কুলভূষণ ‌যাদব মামলায় আন্তর্জাতিক আদালতে লড়াই করেছিলেন কুরেশি। তবে ভারতীয় আইনজীবী হরিশ সালভের কাছে এঁটে উঠতে পারেননি। (আরও পড়ুন- ‘ইউপিএ সরকারের জায়গায় মোদী থাকলে আমার ভাইটাও বাঁচত’, আক্ষেপ সরবজিতের দিদির)

ডাবহোল বিদ্যুৎ প্রকল্প নিয়ে মামলায় কুরেসিকে নিয়োগ করা হয়েছিল। এজন্য দেওয়া হয়েছিল ৬ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। ২০০৪ সালে ইউপিএ সরকার আসার পর এই মামলায় আইনজীবী বদলানো হয়। আগের আইনীজীবী বদলে নিয়োগ করা হয় কুরেশিকে। ভারতীয় আইনজীবীদের বাদ দিয়েই কেন পাক আইনজীবীকে এত বিশাল অঙ্কের টাকা দিয়ে নিয়োগ করা হয়েছিল? (আরও পড়ুন- ‘বাহার নিকালকে ঠোকুঙ্গা, তেরা অব খ্যার নেহি,’ আগে থেকে ঘোষণা করে বরকতিকে ঠেঙিয়ে গেলেন উপদেশ)

কংগ্রেস নেতা অভিষেক মনু সিঙ্ঘভির ব্যাখ্যা, গোটা বিষয়টি নিয়ে অ‌যথা বিতর্ক তৈরি করা হচ্ছে। পাকিস্তানও অনেক ভারতীয় আইনজীবীকে নিয়োগ করে। (আরও পড়ুন- আবারও গণতন্ত্রের হত্যা, পূজালির বিজেপি কাউন্সিলর ‌যোগ দিলেন তৃণমূলে)

কিন্তু কেন পাক আইনজীবী নিয়োগ করা হল? ভারতে কি আইনজীবী কম পড়েছে? শত্রুদেশের আইনজীবীকে কেন কাড়ি কাড়ি টাকা দিল কংগ্রেস সরকার? পাকিস্তান এদেশে সন্ত্রাস চালায়। তাদের আইনজীবীকে নিয়োগ করে দেশবাসীর ভাবাবেগকে কেন ম‌র্যাদা দেওয়া হল না? উঠছে প্রশ্ন। (আরও পড়ুন- ‘কংগ্রেসকে ছাড়ুন, বিজেপির বিরুদ্ধে অলআউট ‌যান’, নির্দেশ মমতার)

বিজেপি নেতা জেভিএল নরসিমা রাওয়ের কথায়, “কংগ্রেস মেড ইন পাকিস্তানের আইনজীবীদেরই পছন্দ করে। মেড ইন ইন্ডিয়ার আইনজীবীদের নয়।”(আরও পড়ুন- নীল-সাদায় পড়ে মমতার বাংলা, মুম্বইকে সত্যিই ‘লন্ডন’ করছেন ফড়ণবীস, দেখুন ভিডিও)