কলকাতা, ১ ডিসেম্বর : নোট বাতিলের পর আজই কেন্দ্রের সবথেকে বড় পরীক্ষা। বেতনের টাকা তুলতে বিভিন্ন ব্যাঙ্কে ও এটিএ-এ মানুষ ভিড় জমিয়েছেন। কিন্তু কলকাতা সহ দেশের বহু শহরের হাল একই। বহু এটিএম বন্ধ, ব্যাঙ্কেও লম্বা লাইন। কোথাও টাকা নেই কোথায় ‌যে টাকা দেওয়ার কথা তার থেকে অনেক কম টাকা দেওয়া হচ্ছে।(আরও পড়ুন : ব্যাঙ্ক থেকে টাকা তোলার উর্দ্ধসীমা উঠিয়ে দিল অর্থমন্ত্রক, এটিএম থেকে তোলা ‌যাবে আরও বেশি টাকা)

মাসের প্রথম দিনেই স্বাভাবিকভাবেই মাইনে তুলে ব্যাঙ্কের লাইনে দাঁড়িয়ে গেছেন বহু মানুষ। মধ্য কলকাতা, শ্যামবাজার, ডালহৌসির মতো জায়গায় বহু এটিএম টাকার অভাবে বন্ধ করে দেওয়া হয়। ব্যাঙ্কেও পড়েছে দীর্ঘ লাইন। সরকারের নির্দেশিকা মতো ব্যাঙ্ক থেকে ২৪ হাজার টাকা দেওয়ার কথা। কিন্তু ব্যাঙ্কে গিয়ে মিলছে তার থেকে অনেক কম।(আরও পড়ুন : এত তাড়াতাড়ি ফুরিয়ে ‌যাচ্ছে টাকা, কত টাকা ধরে একটা ATM-এ)

ইতিমধ্যেই র‍্যাজে সরকারি কর্মচারীদের বেতনের জন্য  ১৩২৪ কোটি টাকা পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে বলে খবর। এর মধ্যে ২ হাজার টাকার নোটে এসেছে ৫১ লাখ। ১০০ ও ৫০০ টাকার নোটের সংখ্যা অনেক কম। ফলে সাধারণ মানুষের নাকাল অবস্থা। ২ হাজার টাকার নোট নিয়ে সাধারণ মানুষের অভি‌যোগ ছিলই। ওই বড় নোটের খুচরো অনেকেই দিতে চাইছিলেন না। কলকাতা, আসানসোল, বাঁকুড়ার মতো শহরে একই চিত্র ধরা পড়ল। শোনা ‌যাচ্ছে গতকাল গভীর রাতে ‌যে টাকা এসেছিল তা পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে উত্তরবঙ্গে, তার পরেও একবার টাকা এসেছিল তাও জেলাগুলিতে পাঠানো হয়েছিল। দুপুরের পর থেকে টাকার ‌যোগান অনেকটাই স্বাভাবিক হয়ে ‌যাবে বলে শোনা ‌যাচ্ছে।